পূর্ব পরিকল্পিত উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে তাকে প্রাণে মারার চেষ্টা
পূর্ব পরিকল্পিত উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে তাকে প্রাণে মারার চেষ্টা

পত্রদূত প্রতিনিধিঃ ঘটনার বিবরণে জানা যায় কমলাসাগর চৌধুরীর এলাকার বাপন মিয়ার বোনের বিয়ে ছিল আর সেই বিয়েতে বাংলাদেশ থেকে কয়েক জন দুষ্কৃতী তাদের বাড়িতে অংশগ্রহণ করে ।জানা যায় সেই বাংলাদেশি যুবকরা তারকাটা বেড়া ডিঙিয়ে এই পাড়ে এসে বাপন মিয়া বোনের বিয়েতে অংশগ্রহণ করে। কিন্তু বিবাহের রাত্রি বেলা আচমকা বাপন মিয়া চৌধুরীর এলাকার মিঠুন সরকারকে গভীর রাত্রে বেলা বাড়ি থেকে ডেকে নেয়। পার্শ্ববর্তী বাড়ি বলে মিঠুন সরকার তাদের বাড়িতে যাই। কিন্তু মুহূর্তের মধ্যেই পূর্ব পরিকল্পিত উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে তাকে প্রাণে মারার চেষ্টা চালায়। মুহূর্তের মধ্যেই বাপন মিয়া তাকে ধাক্কা দিয়ে মাটিতে ফেলে দেইয় তাতেই ক্ষান্ত থাকেনি। পরবর্তী সময়ে তাকে বেধড়ক মারধর করে বলে অভিযোগ ।একটা সময় মিঠুন সরকার চিৎকার করলে তার বাড়ির লোকজন গিয়ে তাকে সেখান থেকে উদ্ধার করে নিয়ে আসে। কিন্তু কিছুক্ষণ পরই বাপন মিয়া তার সাঙ্গপাঙ্গদের নিয়ে মিঠুন সরকার বাড়িতে আক্রমণ চালায় ।ভেঙ্গে দেয় ঘরের দরজা-জানালা সব আসবাবপত্র ।অভিযোগ বাপন মিয়া মিঠুন সরকার কে ডেকে নিয়ে জিজ্ঞেস করছিল তাদের বাড়িতে কেন আসেনি এমন সময় মিঠুন সরকার জানিয়ে দেই বাপনের বৌদি অর্থাৎ মিঠুন সরকার এর স্ত্রীর সাথে কথা বলতে তাতে কিপ্ত হয়ে উঠে বাপন মিয়া। আর যার পরিণতি শেষ পর্যন্ত মাথা ফাটিয়ে দেওয়া ।পরবর্তী সময়ে মিঠুন সরকার মধুপুর থানায় অভিযুক্ত বাপন মিয়ার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে তা নিয়ে এলাকায় চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে।

আরো পড়ুন