ছাত্র ছাত্রীদের ডেপুটেশন
ছাত্র ছাত্রীদের ডেপুটেশন

পত্রদূত প্রতিনিধিঃ কৈলাশহরঃ- বিগত নয় জুলাই তারা জানতে পেরেছে রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী ঘোষণা করেছেন কোভিড পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে আগস্টের শেষ সপ্তাহে ষষ্ঠ সেমিস্টারের চূড়ান্ত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে এ ক্ষেত্রে 25% সিলেবাস কমানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। ছাত্র ছাত্রীদের বক্তব্য হলো তাদের অনলাইনে ক্লাস শুরু হয়েছে 7 জুন থেকে তাই মাত্র দু মাসে 75 শতাংশ সিলেবাস কখনই শেষ হওয়া সম্ভব নয়। তাছাড়া অনলাইন ক্লাস এর ক্ষেত্রে বহু সমস্যা রয়েছে, বহু অধ্যাপক অধ্যাপিকা প্রত্যন্ত এলাকায় থাকার কারণে সঠিকভাবে ক্লাস হচ্ছে না এমনকি প্রতিটি ছাত্র-ছাত্রী ও অনলাইন ক্লাসে সুযোগ গ্রহণ করতে পারছেন না। এই স্বল্প সময়ে 75 শতাংশ সিলেবাসও সম্পন্ন করে অফলাইন মোড এ পরীক্ষা দেওয়া সম্ভব নয়। যেহেতু তারা চূড়ান্ত বছরের ছাত্র ছাত্রী, তাই এই ফলাফল তাদের কাছে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ভবিষ্যতে উচ্চশিক্ষার জন্য। তাদের বক্তব্যঃ এই স্বল্প সময়ে পরীক্ষা হলে এসাইনমেন্ট ও ইন্টারনেল এর ভিত্তিতে তাদের মেধা যাচাই করা হোক নতুবা পরীক্ষার সময়সূচি কিছুটা পিছনে নেওয়া হোক সিলেবাস শেষ না হওয়া পর্যন্ত। একই সাথে তাদের বক্তব্য পার্শ্ববর্তী অন্যান্য রাজ্যগুলিতে অনলাইন মোডে পরীক্ষা হচ্ছে সেক্ষেত্রে তাদের অর্জিত নাম্বার ও এই স্বল্প সময়ে পরীক্ষা দিয়ে ত্রিপুরা ইউনিভার্সিটির অন্তর্গত ছাত্র-ছাত্রীদের নম্বরে বিশাল ফারাক তৈরি হবে। যেহেতু উচ্চশিক্ষায় ভর্তির ক্ষেত্রে প্রাপ্ত নাম্বারকে প্রাধান্য দেওয়া হচ্ছে কোভিড পরিস্থিতিতে সে ক্ষেত্রে তারা উচ্চ শিক্ষা অর্জন করতে পারবে না বলেও অভিমত ছাত্র-ছাত্রীদের। রাজ্য শিক্ষা দপ্তর যেন সম্পূর্ণ বিষয়টিকে গুরুত্ব দিয়ে বিবেচনা করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করে সেই দাবি জানিয়েছে ছাত্রছাত্রীরা।

আরো পড়ুন